Breaking

Post Top Ad

Your Ad Spot

Thursday, 30 September 2021

ফাঁকিবাজ পড়ুয়াদের অনলাইন ক্লাসমুখী করতে বাড়ি বাড়ি পৌঁছে যাচ্ছেন শিক্ষকেরা

Teachers-are-reaching-home

সমকালীন প্রতিবেদন : করোনা পরিস্থিতির কারণে দীর্ঘদিন ধরে বন্ধ স্কুল‌। অনলাইন ক্লাসই এই মুহূর্তে একমাত্র ভরসা। কিন্তু সেক্ষেত্রেও ফাঁকিবাজি। আর এই ফাঁকিবাজ পড়ুয়াদের অনলাইন ক্লাসমুখী করতে বাড়ি বাড়ি পৌঁছে যাচ্ছেন স্কুল শিক্ষকেরা। পড়ুয়াদের পাশাপাশি অভিভাবকদেরও এ ব্যাপারে সচেতন করার চেষ্টা করছেন উত্তর ২৪ পরগনার বাগদা থানার কনিয়ারা যাদবচন্দ্র হাই স্কুলের শিক্ষকেরা।


এই উচ্চ মাধ্যমিক স্কুলের এই মুহূর্তে ছাত্রছাত্রীর সংখ্যা ৮৬০ জন। পড়ুয়াদের মধ্যে প্রায় ৯০ শতাংশ দারিদ্র্য সীমার নিচে বসবাসকারী। স্বাভাবিকভাবেই পড়ুয়াদের মধ্যে স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যাও হাতেগোনা। করোনা পরিস্থিতির কারণে তাই তাদেরকে নিয়েই চলছে অনলাইন ক্লাস।


স্কুলের প্রধান শিক্ষক অনুপম সরদার জানান, '‌স্কুলের ষষ্ঠ শ্রেণী থেকে দ্বাদশ শ্রেণী পর্যন্ত ছাত্রছাত্রীদের এই অনলাইন ক্লাস করানো হচ্ছে। এর জন্য সপ্তাহের চারটি দিন বেছে নেওয়া হয়েছে। প্রতিটি ক্লাসের এবং বিষয়ের জন্য আলাদা আলাদা গ্রুপ তৈরি করা হয়েছে। প্রতি ক্লাসে গড়ে ২০ থেকে ২৫ জন অংশ নেয়।'‌ 


প্রধান শিক্ষক আরও জানান, '‌ক্লাস চলাকালীন দেখা যাচ্ছে, পড়ুয়াদের একটা অংশ অনলাইন ক্লাস চলাকালীনই গ্রুপ থেকে লেফট হয়ে যাচ্ছে। পরের দু'চারদিন আর তাদেরকে অনলাইন ক্লাসে পাওয়া যাচ্ছে না।'‌ স্কুল কর্তৃপক্ষ খোঁজ নিয়ে জানতে পারে, তারা অনলাইন ক্লাসে যুক্ত না হ‌য়ে সেই সময় বাড়ি থেকে বেরিয়ে ভিডিও গেমে আসক্ত হয়ে পড়ছে।


এ ব্যাপারে স্কুল কর্তৃপক্ষ বৈঠক করে সিদ্ধান্ত নেয় যে, এই ধরনের ক্লাসছুট ছাত্রছাত্রীদের অনলাইন ক্লাসমুখি করতে তাদের বাড়ি বাড়ি যাওয়া হবে। পড়ুয়াদের পাশাপাশি তাদের অভিভাবকদেরও সচেতন করা হবে। তাঁদের বোঝানো হবে, করোনা পরিস্থিতির মধ্যে অনলাইন ক্লাস করা কতটা জরুরি।


সেই সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ইতিমধ্যেই স্কুলের শিক্ষকেরা আলাদা আলাদা দল তৈরি করে পৌঁছে যাচ্ছেন ছাত্রছাত্রীদের বাড়িতে। এলাকার ১১ টি গ্রামের ছাত্রছাত্রীরা এই স্কুলের সঙ্গে যুক্ত। শিক্ষকরা এই গ্রামগুলিতে ঘুরে  আগামী কয়েকদিনের মধ্যে প্রতিটি ছাত্রছাত্রীর বাড়িতে পৌঁছে যাওয়ার লক্ষ্যমাত্রা স্থির করেছেন।


প্রধান শিক্ষক জানান, 'অনলাইন ক্লাসের পাশাপাশি শিক্ষকরা বিষয় ভিত্তিক অডিও ভিসুয়াল তৈরি হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে আপলোড করে দিচ্ছেন‌। ফলে ছাত্রছাত্রীদের তা বুঝতেও সুবিধা হচ্ছে। বাড়িতে বসেই পড়ুয়ারা তাদের স্মার্টফোনের মাধ্যমে এইভাবে পড়াশোনার কাজ আপাতত চালিয়ে যেতে পারছে।' 


এই পরিস্থিতিতে যাতে একজন পড়ুয়াও কোন‌ও অনলাইন ক্লাস থেকে বাদ না পড়ে, তারজন্যই এই বাড়ি বাড়ি যাওয়ার কর্মসূচি নেওয়া হয়েছে। স্কুল কর্তৃপক্ষের আশা, তাঁদের এই অভিযানে ছাত্রছাত্রীরা উপকৃত হবে। সফল হবে স্কুল কর্তৃপক্ষের উদ্দেশ্য।

No comments:

Post a Comment