Breaking

Post Top Ad

Your Ad Spot

Tuesday, 20 July 2021

মাধ্যমিকে সর্বোচ্চ নম্বর প্রাপকদের তালিকায় বনগাঁর ছাত্র

 

মাধ্যমিকে সর্বোচ্চ নম্বর প্রাপকদের তালিকায় বনগাঁর ছাত্র

সমকালীন প্রতিবেদন : এবারের মাধ্যমিক পরীক্ষায় যে ‌৭৯ জন পরীক্ষার্থী প্রথম স্থানে রয়েছে, সেই তালিকায় জায়গা করে নিল বনগাঁর এক ছাত্র। দিব্যদুতি রায় নামের ওই ছাত্র বনগাঁ রাখালদাস হাই স্কুল থেকে এবার মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী ছিল। তার এই ফলাফলে আপ্লুত এবং গর্বিত স্কুল কর্তৃপক্ষ।

বনগাঁর ভবানীপুর গ্রামের বাসিন্দা দিব্যদুতি পঞ্চম শ্রেণী থেকে স্কুলের সমস্ত পরীক্ষাতে সর্বোচ্চ শতাংশ নম্বর পেয়ে প্রথম হয়ে আসছে। বাবা সঞ্জীব রায় ছোটখাটো ব্যবসার সঙ্গে যুক্ত। স্কুলের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক উজ্জ্বল বিশ্বাস জানান, 'আমাদের বিদ্যাল‌য়ে ক্লাসের পরীক্ষায় সর্বোচ্চ নম্বরপ্রাপক হিসেবে প্রতি বছর পুরস্কার পেয়ে আসছে দিব্যদুতি। আর এবারের মাধ্যমিক পরীক্ষায় সেই সমস্ত রেকর্ডকে ছাড়িয়ে রাজ্যে প্রথম স্থানাধিকারীদের মধ্যে নিজের জায়গা করে নিয়েছে সে।'‌

দিব্যদুতির প্রাপ্ত নম্বর ৬৯৭ এর মধ্যে অংক, দুই বিজ্ঞান এবং ভূগোলে ১০০, বাংলা, ইতিহাস এবং ইংরেজিতে ৯৯ নম্বর এসেছে। এই ফলাফল সম্পর্কে তাঁর বক্তব্য, '‌লক্ষ্য ছিল মাধ্যমিকে ৬৯০ পাওয়ার। কিন্তু পরীক্ষা না হওয়ায় কোন কিছুই ভাবতে পারছিলাম না শেষ পর্যন্ত সর্বোচ্চ নম্বর পাওয়ায় আমি আপ্লুত।' সাতটি বিষয়ের জন্য ‌৬ জন গৃহশিক্ষক ছিলেন। নিজের স্কুলে বিজ্ঞান বিভাগ না থাকায় অন্য স্কুলে বিজ্ঞান বিভাগে ভর্তি হবে সে। আগামী দিনে অঙ্ক অথবা পদার্থবিজ্ঞান নিয়ে পড়াশোনা করে গবেষণা করতে চায় দিব্যদুতি। 

স্কুল পরিচালন কমিটির সভাপতি চন্দন ঘোয় দিব্যদুতির এই নম্বর প্রাপ্তির ঘটনায় তাকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক উজ্জ্বল বিশ্বাস জানান, 'আমরা মার্কশিট হাতে পাবার পর অবাকই হয়ে পড়ি। ধাতস্ত হয়ে দিব্যদুতির বাড়িতে খবর পাঠানো হয়। স্কুলের ইতিহাসে এমন ফলাফল নজিরবিহীন।'‌ দু'বছর আগে এই স্কুল থেকেই মানিক হালদার নামে এক ছাত্র বনগাঁ মহকুমার মধ্যে দ্বিতীয় স্থান অধিকার করেছিল। আর এবারে সেই সমস্ত রেকর্ড ভেঙে নতুন রেকর্ড তৈরি হল বনগাঁর রাখালদাস হাইস্কুলে। ২০১৩ সালে রাকেশ রায় উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় এই স্কুল থেকে জেলার মধ্যে সর্বোচ্চ নম্বর পান।



No comments:

Post a Comment