Breaking

Post Top Ad

Your Ad Spot

Thursday, 16 September 2021

চাকরির দাবিতে শরীরে রক্ত লেপে আন্দোলন চাকরিপ্রার্থীদের

 ‌

সৌদীপ ভট্টাচার্য : বৃহস্পতিবার সকাল এগারোটা নাগাদ চাকরির দাবিতে ডিএল এড প্রশিক্ষিত টেট উর্ত্তীণ প্রার্থীরা জড়ো হন উত্তর ২৪ পরগনার জেলা সদর বারাসতের ডিপিএসসি দপ্তরের সামনে। এরপর ওই চাকরি প্রার্থীরা আন্দোলন শুরু করেন। আন্দোলনরত চাকরি প্রার্থীরা নিজেদের শরীর থেকে সিরিঞ্জ দিয়ে রক্ত বের করে নিজেদের কপালে তিলক এঁকে দেন। সেইসঙ্গে সার্টিফিকেটের প্রতিলিপিতেও রক্ত লাগিয়ে বিক্ষোভ সংগঠিত করেন এদিন। 

এইভাবে আন্দোলন করতে গিয়ে সঙ্গীতা ঘোষ বিশ্বাস নামে এক টেট উত্তীর্ণ চাকরি প্রার্থী অসুস্থও হয়ে পড়েন। এদিন ওই চাকরি প্রার্থীরা জানান, ২০১৪ সালে তাঁরা টেট উর্ত্তীণ হয়েছেন। তাঁরা ডিএলএডও পাশ। কিন্তু তাঁরা চাকরি পাচ্ছেন না। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির দিকে এখন তাঁরা তাকিয়ে আছেন বলেও জানান আন্দোলনকারীরা।  

তাঁরা জানান, মুখ্যমন্ত্রীর নজর কাড়তেই এদিন তাঁরা সকালেই ল্যাবরেটরি থেকে কয়েকজন লোককে এনে তাঁদের শরীর থেকে সিরিঞ্জে করে রক্ত টানান। তার পর তাঁরা সেই রক্ত দিয়ে মাথায় তিলক আঁকেন। পাশাপাশি, তাঁরা নিজেদের সার্টিফিকেটের প্রতিলিপিতে সেই রক্ত লেপন করে বিক্ষোভ দেখান। তাঁরা আরও জানান, এদিন ল্যাবরেটরি থেকে যারা তাঁদের ডাকে সাড়া দিয়ে এখানে এসেছিলেন, তাঁরা বিনা পারিশ্রমিকেই এই কাজ করেছেন। 

তবে এদিন বারাসতের ওই অফিসের সামনে খোলা রাস্তায় শরীর থেকে রক্ত বের করে এমন আন্দোলনের মাধ্যমে তাঁরা সমাজকে কি বার্তা দিলেন, সেই প্রশ্নের উত্তর এড়িয়ে গিয়ে তাঁরা বলেন, পরিস্থিতির কারণে তাঁরা একপ্রকার নিরুপায় হয়েই এদিনের এই পথে আন্দোলন করেছেন। জীবনের অনেকগুলি বছর তাঁদের চাকরি পাওয়ার জন্য ব্যয় হয়ে গেছে। তাই বাধ্য হয়ে এইরকম আন্দোলন করেছেন তাঁরা। তাঁদের দাবি, মুখ্যমন্ত্রী তাঁর প্রতিশ্রুতি রাখুন। 




No comments:

Post a Comment