Breaking

Post Top Ad

Your Ad Spot

Wednesday, 8 September 2021

বনগাঁয় দুয়ারে সরকার কর্মসূচিতে উপভোক্তাদের সহযোগিতা করলেন বিজেপির জনপ্রতিনিধিরা

 

The-people-representatives-of-BJP-cooperated

সমকালীন প্রতিবেদন : ‌রাজ্য সরকারের দুয়ারে সরকার কর্মসূচিতে উপভোক্তাদের সহযোগিতা করতে এগিয়ে এলেন বিজেপির জনপ্রতিনিধিরা। অবিশ্বাস্য মনে হলেও রাজনীতির উর্ধ্বে উঠে মানুষের পাশে থাকাটাই রাজনীতি, এমন মনে করে সরকারি প্রকল্পে সহায়তা করতে বিজেপি নেতা–নেত্রীদের এমন উদ্যোগ বলে তাঁরা নিজেরা জানালেন।

রাজ্য জুড়ে দুয়ারে সরকার প্রকল্পের দ্বিতীয় পর্যায়ের কাজ শুরু হয়েছে। এই কর্মসূচির প্রথম বছরে বিরোধীরা বিশেষ করে বিজেপির পক্ষ থেকে নানারকম কটাক্ষ করা হলেও বিরোধী দলের নেতানেত্রীদের পরিবারের সদস্যদেরকেই এই সরকারি প্রকল্পের সুবিধা নিতে দেখা গেছে। যদিও এব্যাপারে রাজ্য সরকারের বক্তব্য ছিল, রাজ্যের বাসিন্দা হিসেবে রাজ্য সরকারের বিভিন্ন প্রকল্পের সুবিধা যেকেউ নিতে পারেন। সেক্ষেত্রে কোনও রাজনৈতিক রং দেখা হবে না।

এবছর শুরু হয়েছে দুয়ারে সরকারের দ্বিতীয় পর্যায়ের কর্মসূচি। আর সেই কর্মসূচিতে উপভোক্তাদের সহযোগিতা করতে দেখা গেল বিজেপির জনপ্রতিনিধিদের। বুধবার বনগাঁ ব্লকের কালুপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের বল্লভপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে দুয়ারে সরকার প্রকল্পের শিবির বসেছিল। সেখানে অন্য ভূমিকায় দেখা গেল বিজেপি নেতা তথা বনগাঁ পঞ্চায়েত সমিতির সদস্য অর্ণব সুর, কালুপুর পঞ্চায়েতের বিজেপি সদস্য লতিকা সুর, প্রসেনজিৎ বিশ্বাস, হরিদাস রায়দের। শিবিরের বাইরে গাছতলায় বসে রাজ্য সরকারের বিভিন্ন জনমূখি প্রকল্প সম্পর্কে সাধারণ মানুষকে বোঝানোর পাশাপাশি তাঁরা ফর্ম পূরণের বিষয়েও সহযোগিতা করলেন। বিজেপি নেতাদের এমন ভূমিকায় দেখে উচ্ছ্বসিত গ্রামের মানুষেরা। 

বিজেপির জনপ্রতিনিধি অর্ণব সুর, লতিকা সুরেরা জানালেন, 'আমরা জনগণের ভোটে নির্বাচিত প্রতিনিধি। রাজনীতির উর্ধ্বে উঠে মানুষের পাশে থাকাটাই রাজনীতি। মানুষের জন্য দল‌। দলের জন্য মানুষ নয়। তাই এখানে এসে সকাল থেকে সাধারণ মানুষদের সহযোগিতা করছি।' কালুপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের তৃণমূল সদস্য সঞ্জয় মন্ডল বলেন, 'জনগণের কাজে আমরা কোনও রাজনীতি দেখি না। সব দলের রাজনৈতিক নেতারা আমরা একসঙ্গে কাজ করি। আমাদের সরকার মানুষের উন্নয়নের কথা বলে। আজ আমাদের পাশাপাশি বিজেপি নেতারা এসে সহযোগিতা করছেন। এটা আমাদের কাছে কোনও নতুন ব্যাপার নয়।'‌




No comments:

Post a Comment