Breaking

Post Top Ad

Your Ad Spot

Sunday, 12 September 2021

সন্তান প্রসবের চারদিন পর মৃত্যু বধূর, উত্তপ্ত সরকারি হাসপাতাল

 

Heated-Government-Hospital

সমকালীন প্রতিবেদন : সন্তান জন্ম দেওয়া‌র পরপরই মৃত্যু হল মায়ের।  চিকিৎসায় গাফিলতিতে রোগীর মৃত্যু হয়েছে বলে অভিযোগ তুলে হাসপাতালে বিক্ষোভ দেখালেন মৃতার পরিবারের লোকজনেরা। আর এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক উত্তেজনার সৃষ্টি হল বীরভূম জেলার বোলপুর মহকুমা হাসপাতালে। পরিস্থিতি সামাল দিতে ঘটনাস্থলে হাজির হয় বোলপুর থানার পুলিশ।  

পুলিশ এবং পরিবার সূত্রে জানা গেছে, বীরভূমের নানুর থানার বড়া সাঁওতা গ্রামের বাসিন্দা, সন্তান সম্ভবা আগমনী হাজরা (২৪) কে ৪ সেপ্টেম্বর বোলপুর মহকুমা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে তিনি পুত্র সন্তানের জন্ম দেন।  চারদিন পর পুত্র সন্তানকে নিয়ে বাড়ি ফিরে যান আগমনী। বাড়িতে ফেরার পর শনিবার পেটে প্রচণ্ড ব্যথা অনুভব করতে থাকেন তিনি। পেট দিয়ে রক্তক্ষরণ হতে শুরু করে। তৎক্ষণাৎ তাঁকে ফের বোলপুর মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। রবিবার হঠাৎ করে সেখানেই মৃত্যু হয় আগমনী হাজরার। 

তাঁর এই মৃত্যুর খবর জানাজানি হতেই ক্ষোভে ফেটে পড়ে রোগীর পরিবার। বোলপুর মহকুমা হাসপাতালের সামনে রোগীর পরিজনেরা ব্যাপক বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন। পরিবারের সদস্যদের অভিযোগ, চিকিৎসকদের ভুল চিকিৎসার কারণেই আগমনীর মৃত্যু হয়েছে। সঠিক চিকিৎসা হলে এমন ঘটনা ঘটতো না বলে তাঁদের দাবি। 

মৃত আগমনীর স্বামীর অভিযোগ, 'সন্তান প্রসবের পর পেটে ঠিকঠাক সেলাই করা হয় নি। আর তাই সেই জায়গা দিয়ে প্রচুর রক্তপাত হয়েছে। হাসপাতালের স্বাস্থ্যকর্মীদের চরম দুর্ব্যবহারের পাশাপাশি রোগীর শেষ অবস্থায় চিকিৎসক গিয়ে চিকিৎসা করায় শেষ পর্যন্ত রোগীকে বাঁচাতে পারেন নি চিকিৎসক। আমরা চিকিৎসকের সঙ্গে কথা বলতে চাইলে তাঁরা ভয়ে পালিয়ে যান।' এব্যাপারে বোলপুর মহকুমা হাসপাতালের সুপার বিষয়টি তদন্ত করে দেখার আশ্বাস দিয়েছেন।






No comments:

Post a Comment