Breaking

Post Top Ad

Your Ad Spot

Friday, 16 July 2021

রবীন্দ্রনাথকে বাদ দিয়ে রামদেব, এরপর কি আশারাম বাপু? প্রশ্ন তুলল তৃণমূল।

রবীন্দ্রনাথকে বাদ দিয়ে রামদেব, এরপর কি আশারাম বাপু? প্রশ্ন তুলল তৃণমূল।

দেবাশীষ গোস্বামী : উত্তরপ্রদেশ শিক্ষা পর্ষদের দ্বাদশ শ্রেণীর পাঠ্যসূচি থেকে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ছুটি গল্পের ইংরেজি অনুবাদ বাদ দেওয়ার ঘটনায় যোগী সরকারকে একহাত নিয়েছেন তৃণমূল নেতা শুখেন্দুশেখর রায়। 


তিনি বলেছেন, 'বিশ্ববরেণ্য কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের রচনা সিলেবাস থেকে যারা বাদ দিয়েছেন তারা তো ইতিহাস বদলে দিতে চান। রবীন্দ্রনাথকে বাদ দিয়ে রামদেবের বই পড়ানো হচ্ছে। আমাদের স্বাভাবিক প্রশ্ন, যোগী আদিত্যনাথের সরকার কি এরপর আশারাম বাপুর বই পড়াবে?"


উত্তরপ্রদেশের সরকার সম্প্রতি নতুন শিক্ষাবর্ষে এনসিইআরটি সিলেবাস চালু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এর ফলে বিদ্যালয়ের পাঠ্যক্রমের কিছু পরিবর্তন ঘটিয়েছে। বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ হয়ে গেছেন অযোগ্য। সেখানে দেখা যাচ্ছে বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথের লেখাও তাদের পাঠক্রম থেকে বাদ পড়েছে। দ্বাদশ শ্রেণির পাঠ্যক্রমে এর আগে ছুটি কবিতার ইংরেজি অনুবাদ দ্য হোম কামিং অন্তর্ভুক্ত ছিল। কিন্তু সেটি এবারের পাঠ্যক্রম পরিবর্তনের ফলে বাদ পড়েছে। শুধু নোবেলজয়ী বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথের লেখাই নয়, প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি ও শিক্ষাবিদ সর্বপল্লী রাধাকৃষ্ণানের ওম্যান এডুকেশন, প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি আর কে নারায়ণের এন অ্যাস্ট্রলজারস ডে, বিখ্যাত সাহিত্যিক মুলক রাজ আনন্দের দ্য লস্ট চাইল্ডও নতুন পাঠক্রম থেকে বাদ পড়েছে। সেই জায়গায় অন্তর্ভুক্ত হয়েছে বর্তমান উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ ও বাবা রামদেবের লেখা। এর ফলে সারা দেশেই শুরু হয়েছে বিতর্ক। 


পশ্চিমবঙ্গের শিক্ষা মন্ত্রী ব্রাত্য বসু এ প্রসঙ্গে বলেছেন, 'যোগী আদিত্যনাথ ও তার দল বিজেপি বাংলার সংস্কৃতি এবং দেশের ঐতিহ্য কিছুই বোঝেনা।' তিনি সাংবাদিক সম্মেলন করে যোগী আদিত্যনাথ সরকারের তীব্র নিন্দা করেছেন। 



No comments:

Post a Comment