Breaking

Post Top Ad

Your Ad Spot

Thursday, 9 September 2021

ভুয়ো ডিএসপি সেজে গ্রেপ্তার ইংরেজি অনার্স উত্তীর্ণ যুবক

 ‌

Fake-DSP-arrest

সমকালীন প্রতিবেদন : ভুয়োদের তালিকায় রাজ্যে আর এক নতুন সংযোজন। গাড়িতে সরকারি স্টিকার লাগিয়ে পুলিশের ডিএসপির পোশাক পরে মদ্যপান করার সময় আসল পুলিশের হাতে ধরা পরল ভুয়ো পুলিশ অফিসার। থানায় এনে জেরা করতেই কান্নায় ভেঙে পরল ওই জালিয়াত। যদিও তার দাবি, মিথ্যে পোশাকে নিজেকে সাজালেও সে কারোর সঙ্গে প্রতারণা করে নি। হুগলী জেলার চন্দননগর থানা এলাকার এই ঘটনায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। 

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, চন্দননগর বক্সি গলির বাসিন্দা সিদ্ধার্থ চক্রবর্তী নামের ওই যুবক চন্দননগর কলেজ থেকে ইংরেজিতে অনার্স নিয়ে পাশ করেছে, এমনই দাবি তার। তার আরও দাবি, বিবাহিত ওই যুবক আগে মেডিকেল রিপ্রেজেন্টিটিভের কাজের সঙ্গে যুক্ত ছিল। এখনও সে সেই কাজ করে বলে পরিবারের লোকেরা জানেন। বুধবার বেশি রাতে সে তার দুই সঙ্গীকে নিয়ে চন্দননগর স্ট্রান্ড রোডে রানীঘাটের কাছে একটি সাদা রঙের স্করপিও গাড়িতে বসে মদ খাচ্ছিল। তার পরনে ছিল রাজ্য পুলিশের ডিএসপি পদমর্যাদার অফিসারের পোশাক। 

এমন পোশাক পরিহিত একজনকে দেখে প্রথমে কাছে যেতে দ্বিধা করছিলেন চন্দননগর থানার পুলিশের কর্তব্যরত পুলিশ অফিসারেরা। তবুও সাহস করে কাছে যেতেই তাঁদের ভুল ভাঙে। কথাবার্তায় অসঙ্গতি মেলায় তাকে নিয়ে আসা হয় চন্দননগর থানায়। তখন তার মুখ দিয়ে মদের গন্ধ বেরোচ্ছে। থানার ভারপ্রাপ্ত আধিকারিক তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করতেই তালগোল হারিয়ে ফেলে সে। এমনকি তখন নিজের শ্বশুরের নাম পর্যন্ত ভুলে গেছে সে। 

কত সালে মাধ্যমিক আর কত সালে অনার্সের পড়া শেষ করেছে, তা মনে করে বলতেও গোলমাল করে ফেলে সে। যদিও কাঁদতে কাঁদতে সে পুলিশ আধিকারিকের কাছে দাবি করে, ভুয়ো পোশাক পরে ঘুড়ে বেরালেও সে কাউকে ঠকায় নি। অবশেষে তাকে গ্রেপ্তার করে বৃহস্পতিবার তাকে আদালতে পাঠায় পুলিশ। কি কারণে সে এইভাবে ভুয়ো পুলিশ অফিসার সেজে ঘুড়ে বেরাচ্ছিল, তা জানার চেষ্টা করছে পুলিশ।





No comments:

Post a Comment