Breaking

Post Top Ad

Your Ad Spot

Sunday, 17 October 2021

TRIPS : দিনের টুকিটাকি :‌ ১৭ অক্টোবর, ২০২১

 ‌এলাকায় বিধায়ক

গত কয়েকদিনের বৃষ্টিতে জলমগ্ন হয়ে পরেছে উত্তর ২৪ পরগনার অশোকনগর–কল্যানগড় পুরসভার ৯ এবং ১৭ নম্বর ওয়ার্ড। রবিবার সেই এলাকা পরিদর্শন করলেন অশোকনগরের তৃণমূল বিধায়ক নারায়ণ গোস্বামী। পুরসভার এই দুই ওয়ার্ডের বেশ কিছু নিচু এলাকা রয়েছে। একটু বৃষ্টিতেই এইসব এলাকা জলমগ্ন হয়ে পরে। ফলে সমস্যায় পরতে হয় এলাকার বাসিন্দাদের। খবর পেয়ে এদিন এলাকা পরিদর্শনে যান নারায়ণ গোস্বামী। জলমগ্ন মানুষেরা বিধায়কের কাছে জমা জল সরানোর ব্যবস্থা করার জন্য আবেদন জানান। সেই আবেদনে সাড়া দিয়ে বিধায়ক তাঁদেরকে জমা জল সরানোর ব্যবস্থা করার আশ্বাস দেন। বিধায়ক জানান, এলাকার নিকাশী ব্যবস্থা সংস্কারের পাশাপাশি পাম্প বসিয়ে জমা জল সরানোর ব্যবস্থা করা হবে।



প্যান্ডেল ভাংচুর

পুজো প্যান্ডেল ভাংচুরের অভিযোগ উঠলো প্রতিবেশী ক্লাবের বিরুদ্ধে। রবিবার এই ঘটনা ঘটেছে উত্তর ২৪ পরগনার হাবরা থানার পঞ্চাননতলা এলাকায়। গত তিন বছর ধরে পঞ্চাননতলায় মহিলা কমিটির পরিচালনায় দুর্গাপুজো হচ্ছে। একসময় মিতালী সংঘে একসঙ্গে দুর্গাপুজো হতো। মহিলা পরিচালিত এই পুজো বন্ধ করার উদ্দেশ্যে এদিন মিতালী সংঘ এই হামলা চালিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। এদিন দুপুরে ঠাকুর বিসর্জন দিতে যাওয়ার সময় মহিলা পরিচালিত পুজো প্যান্ডেলে ভাঙচুর চালানো হয় বলে অভিযোগ। এই ঘটনায় আহত হয়েছেন বেশ কিছু পুরুষ এবং মহিলা। এব্যাপারে হাবরা থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের হয়েছে। অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত শুরু করেছে হাবড়া থানার পুলিশ।  দোষীদের উপযুক্ত শাস্তির দাবি করা হয়েছে। 



কাড়া লড়াই

প্রশাসনিক নির্দেশকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে ফের পুরুলিয়ায় কাড়া লড়াইয়ের আয়োজন হল। ১১ অক্টোব এই লড়াই দেখতে গিয়ে প্রান হারান ঝাড়খন্ডের কমলপুর থানার দান্দুডি গ্রামের বাসিন্দা চিন্টু মোদক নামে এক ব্যাক্তি। তারপরেও রবিবার সকালে পুরুলিয়ার মফঃস্বল থানার বেলকুড়ি গ্রামে চলল মহিষ লড়াই, যাকে স্থানীয় ভাষায় কাড়া লড়াই বলা হয়। সেদিনের ঘটনার পর প্রশাসনের পক্ষ থেকে এই কাড়া লড়াই আয়োজনের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়। কিন্তু প্রশাসনের সেই নিষেধাজ্ঞাকে অমান্য করে এদিন ফের আয়োজন হল এই লড়াইয়ের। এদিনের কাড়া লড়াই দেখতে হাজির ছিলেন প্রায় হাজার খানেক মানুষ। লড়ায়ের দৃশ্য অনেকে মোবাইলে রেকর্ডও করেন। এ ব্যাপারে পুরুলিয়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার চিন্ময় মিত্তল বিষয়টি খোঁজ নিয়ে দেখার আশ্বাস দিয়েছেন।



No comments:

Post a Comment